একইসঙ্গে একাধিক পুরুষকে সামলেছি : শ্রুতি হাসান

দক্ষিণের অভিনেত্রী শ্রুতি হাসান বলিউডে এসে ভালোই চমক দেখিয়েছেন। তার অভিনীত সিনেমাগুলো দর্শকমহলে বেশ প্রশংসিত হয়েছে। শ্রুতির অভিনয়-পারফরমেন্স সমালোচকদের দৃষ্টিও কেড়েছে।
তবে অভিনয়ের বাইরেও মাঝে মধ্যেই নিজের ব্যাক্তিগত বিষয় নিয়ে আলোচনায় থাকেন এ গ্ল্যামার কন্যা। তারই ধারাবাহিকতায় সম্প্রতি বোমা ফাটালেন নিজের এক বক্তব্যের মধ্যে দিয়ে।

সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে অভিনেতা কামাল হাসানের কন্যা জানিয়েছেন তার জীবনে একাধিক পুরুষ ছিলো। এমনকি একইসঙ্গে কয়েকজন পুরুষকে সামলেছেন তিনি।

শ্রুতি হাসান বলেন, ব্যাক্তিগত বিষয় নিয়ে কথা বলতে আমি কখনো দ্বিধা করি না। আমার জীবন একটি খোলা চিঠি। বলতে দ্বিধা নেই, কিশোরী যখন ছিলাম তখনই একাধিক তরুণের সঙ্গে প্রেম করেছি আমি। তাদের সঙ্গে অন্যরকম সময় কাটিয়েছি। কিন্তু সেটা আসলে সিরিয়াস কিছু ছিলো না। সেই বয়সে সবারই চোখে রঙিন চশমা থাকে। আমারো ছিলো।

1.একইসঙ্গে একাধিক পুরুষকে সামলেছেন শ্রুতি!

তিনি বলেন, তবে সেই সময় কাটিয়ে ম্যাচিউরড হয়েছি। এখন সব কিছু বুঝতে পারি। হয়তো অনেক ভুলও করেছি সে সময়। তবে এখন আমি নিজেকে শুধরানোর চেষ্টা করছি। খুব বুঝে-শুনে পথ চলছি। বর্তমানে আমার জীবনে কোন প্রেম নেই। একাই আছি আমি। আর এ সিঙ্গেল জীবন খুব উপভোগও করছি।

শ্রুতি হাসানের অভিষেক হয় ২০০৯ সালে অ্যাকশনধর্মী ‘লাক’ সিনেমায় অভিনয়ের মাধ্যমে। পরবর্তীতে ‘ওয়াট ডিজনী’, ‘আনাগঙ্গা ও ধীরুদু’, ‘ওহ্‌ মাই ফ্রেন্ড’ এবং ‘৭ আম আরিভু’ সিনেমায় অভিনয়ের জন্য তিনি সমালোচকদের প্রশংসা অর্জন করেন। ২০১২ সালে, তিনি ‘গব্বার সিং’, হিন্দি ‘দাবাং’ সিনেমার তেলেগু পুনঃনির্মিত সিনেমায় অভিনয় করেন, যা তার একটি ব্যবসাসফল চলচ্চিত্র। দক্ষিণ ভারতীয় ভাষার সঙ্গীতশিল্পী হিসেবেও শ্রুতির বেশ শ্রোতাপ্রিয়তা রয়েছে।